For English Version
রবিবার, ০৬ ডিসেম্বর, ২০২০
Advance Search
হোম সারাদেশ

লকডাউনের মধ্যে প্রতিবাদসভা করা হয়নি : শিব শংকর দাশ

Published : Monday, 20 April, 2020 at 7:14 PM Count : 163

ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৫ (নবীনগর) থেকে নির্বাচিত আওয়ামী লীগ দলীয় সংসদ সদস্য এবাদুল করিম বুলবুলকে নিয়ে ফেসবুকে কটাক্ষ করে কুরুচিপূর্ণ ও মানহানিকর পোস্ট দেওয়ার ঘটনায় থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করা হয়েছে।  

রোববার রাতে নবীনগর থানায় জিডিটি করেন এমপি'র ঘনিষ্ঠজন হিসেবে পরিচিত উপজেলা আওয়ামী লীগের যুব ও ক্রীড়াবিষয়ক সম্পাদক মো. নাছির উদ্দিন।

জিডিতে তিনি  উল্লেখ করা হয়, অজ্ঞাতনামা ব্যক্তি/ব্যক্তিরা ১৮ এপ্রিল রাত আনুমানিক সাড়ে ৮টার দিকে সেলিম আহমেদ  নামের ফেসবুক আইডি থেকে সংসদ সদস্য এবাদুল করিম বুলবুলকে উদ্দেশ্য করে তার নাম ও ছবি ব্যবহার করে অত্যন্ত কুরুচিপূর্ণ ও মানহানিকর পোস্ট দেওয়া হয়। এতে সংসদ সদস্যসহ আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের সম্মান ক্ষুণ্নসহ জনসমক্ষে ভাবমূর্তি নষ্ট করা হয়েছে।

নবীনগর থানার ওসি রনোজিক রায় জিডির বিষয়টি অবজারভারকে নিশ্চিত করেন।

এদিকে ফেসবুকে এমপিকে কটাক্ষ করার প্রতিবাদে আওয়ামী লীগের উদ্যোগে রবিবার উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে লকডাউনের মধ্যেও প্রতিবাদ সভা করার বিষয়টি গণমাধ্যমে প্রকাশিত হলে, এ নিয়ে নানা মহলে আলোচনা শুরু হয়।

তবে স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ প্রতিবাদসভা করার বিষয়টি সরাসরি অস্বীকার করেন। এ বিষয়ে নবীনগর পৌরসভার মেয়র ও জেলা আওয়ামী লীগের সাংস্কৃতিবিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট শিব শংকর দাস কালের  বলেন, আমরা কোনো প্রতিবাদ সভা করিনি।  মূলত এমপি মহোদয়কে নিয়ে কটাক্ষ করার বিষয়ে আমরা আইনগতভাবে কি কি ব্যবস্থা নিতে যাচ্ছি, কেবল সেটুকুই সাংবাদিকদের জানাতে সাংবাদিক বন্ধুদেরকে ডাকা হয়েছিল।

উল্লেখ্য, উপজেলার থানাকান্দিতে পা কেটে পৈশাচিক খুনের ঘটনায় দায়ের হওয়া হত্যা মামলায় পার্শ্ববর্তী বীরগাঁও ইউপির চেয়ারম্যান কবির আহমেদকে প্রধান আসামি করে গত ১৭ এপ্রিল নবীনগর থানায় একটি হত্যা মামলা হয়।  স্থানীয় এমপি এবাদুল করিম বুলবুলের ইশারায় মামলায় কবির চেয়ারম্যানকে 'প্রধান আসামি' করা হয়েছে- এমন অভিযোগ এনে কবির চেয়ারম্যানসহ তার (কবির) অনুসারীরা ফেসবুকে এমপি বুলবুলের ছবি দিয়ে নোংরা ভাষায় নানা পোস্ট দেয়।

এলাকাবাসী জানায়, গ্রাম্য দলাদলি ও আধিপত্য বিস্তার নিয়ে উপজেলার কৃষ্ণনগর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান জিল্লুর রহমান ও এলাকার সর্দার আবু কাউছার মোল্লার সশস্ত্র লোকজনের মধ্যে পূর্ব বিরোধের জের ধরে গত ১২ এপ্রিল দফায় দফায় রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে প্রায় অর্ধশত লোক আহত হন। সংঘর্ষ চলাকালে কাউছার মোল্লার পক্ষের লোকজন পৈশাচিকভাবে প্রতিপক্ষের রিকশাচালক মোবারক মিয়ার (৪৫) একটি পা কেটে কুপিয়ে বিচ্ছিন্ন করে। পরে ওই পা হাতে নিয়ে গ্রামে জয়বাংলা স্লোগান দিয়ে 'আনন্দ মিছিল' করে দাঙ্গাবাজরা। 

আহত মোবারক চার দিন পর ১৫ এপ্রিল মারা গেলে, গত ১৭ এপ্রিল কবির আহমেদ চেয়ারম্যানকে প্রধান আসামি করে ১৫২ জনের বিরুদ্ধে নবীনগর থানায় মামলা হয়।

ডিএইচ/এইচএস


« PreviousNext »



সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
Editor : Iqbal Sobhan Chowdhury
Published by the Editor on behalf of the Observer Ltd. from Globe Printers, 24/A, New Eskaton Road, Ramna, Dhaka.
Editorial, News and Commercial Offices : Aziz Bhaban (2nd floor), 93, Motijheel C/A, Dhaka-1000. Phone :9586651-58. Fax: 9586659-60; Online: 9513959 & 01552319639; Advertisemnet: 9513663
E-mail: [email protected], [email protected], [email protected], [email protected],   [ABOUT US]     [CONTACT US]   [AD RATE]   Developed & Maintenance by i2soft