For English Version
সোমবার, ০১ জুন, ২০২০
হোম সারাদেশ

আখাউড়ায় কলেজছাত্রীর রহস্যজনক মৃত্যু

Published : Friday, 3 April, 2020 at 11:00 PM Count : 1526
অবজারভার সংবাদদাতা

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়ায় তানজিনা আক্তার তোহা (২১) নামে এক কলেজ ছাত্রীর মৃত্যু নিয়ে রহস্যের সৃষ্টি হয়েছে।  

শুক্রবার (৩ এপ্রিল) সকালে পৌরশহরের দেবগ্রাম উত্তরপাড়ার বসত বাড়ির নিজ শয়ন কক্ষ থেকে মরদেহ উদ্ধার করে আখাউড়া থানা পুলিশ।  সে ওই গ্রামের মৃত জাহাঙ্গীর আলমের মেয়ে।  তবে ঘটনাটি হত্যা না আত্নহত্যা পুলিশ সঠিক তথ্য জানাতে পারেনি।  এ ঘটনায় পরিবারের সদস্যরা পরস্পর বিরোধী বক্তব্য পাওয়া গেছে।  

নিহত তানজিনা আক্তার তোহার মা জ্যোৎস্না আক্তার দাবী করছেন গলায় ওড়না দিয়ে ফাঁস লাগিয়ে সে আত্মহত্যা করেছে। কিন্তু তানজিনা আক্তার তোহার বড় বোন পপি আক্তার দাবি করছেন তাকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে।  

ঘটনাটি আখাউড়া পৌরশহরে ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি করেছে।  তোহা স্থানীয় একটি কলেজের একাদশ শ্রেণীর দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্রী ছিলেন।





অভিযোগ ঊঠেছে, আখাউড়ার এক প্রভাবশালীর রাজনীতি নেতার ভাতিজা মেয়েটিকে জোর করে বিয়ে করতে চাচ্ছিল। কিন্তু মেয়েটি ওই বিবাহিত ছেলেটিকে পছন্দ করতেন না এবং বিয়েতে অস্বীকৃতি জানায়।  এতে ওই নেতার ভাতিজা ক্ষিপ্ত হয়ে চলতি বছরের ২৭ জানুয়ারি কলেজ ছাত্রী তোহাকে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে পিটিয়ে রক্তাক্ত জখমসহ লাঞ্ছিত করে।  এ ঘটনার খবর পেয়ে পুলিশ মেয়েটি উদ্ধার করে আখাউড়া থানায় নিয়ে যায়।  কিন্তু তোহার মা থানায় অভিযোগ দায়ের করার কথা থাকলেও রহস্যজনক কারণে অদৃশ্য কোন শক্তির হুমকিতে অভিযোগ না দিয়ে বিষয়টি চেপে যায়।

নিহত তানজিনা আক্তার তোহার বড় বোন পপি আক্তার জানান, কয়েকদিন ধরে তোহার সঙ্গে বাসায় পৌরশহরের তারাগন গ্রামের তার এক বান্ধবী রাতে থাকেন।  ঘটনার রাতেও দু’জনে এক সঙ্গে রুমে ছিলেন।  ওই বান্ধুবীর বরাত দিয়ে পপি বলেন, রাত প্রায় দেড়টার দিকে তোহা ঘরের বাইরে যায়।  ওই মেয়েটি তোহাকে বাঁধা দিলেও সে এড়িয়ে বাইরে চলে যায়।  মেয়েটি ঘুমিয়ে যাওয়ায় পরবর্তীতে কী ঘটেছে তা সে জানে না বলে পপি জানায়। 
       
তানজিনা আক্তার তোহার মা জ্যোৎস্না আক্তার এ প্রতিদেককে জানান, বৃহস্পতিবার রাত আড়াইটার দিকে ঘুম ভেঙ্গে দেখতে পান তার মেয়ে তোহার রুমে আলো জ্বালানো এবং ভেতর থেকে দরজা বন্ধ।  অনেক ডাকাডাকি করে কোন সাড়া শব্দ পাওয়া যায়নি।  পরে দরজা ভেঙ্গে প্রবেশ করে দেখতে পায় ফ্যানের সঙ্গে ওড়না প্যাচিয়ে গলায় ফাঁস দিয়ে ঝুলে আছে তোহা। 
এসময় ফাঁস থেকে নামিয়ে মরদেহ মেঝেতে রাখা হয়। তবে একাধিক প্রতিবেশী জানান, তোহার মৃত্যুর ঘটনা রহস্যজনক। পুলিশ সঠিকভাবে তদন্ত করলে রহস্য উদঘাটন করা সম্ভব বলে মনে করেন প্রতিবেশীরা।

আখাউড়া থানার ওসি রাসুল আহামদ নিজামী কলেজ ছাত্রীর লাশ উদ্ধারের কথা নিশ্চিত করেন।  তিনি বলেন, প্রাথমিক ভাবে ধারনা করা হচ্ছে সে আত্মহত্যা করেছে।  তবে ময়নাতদন্তের রির্পোট পেলেই মৃত্যুর প্রকৃত কারণ জানা যাবে।  এ ঘটনায় কাউকে আটক করেনি পুলিশ।  ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে বলে ওসি জানিয়েছেন। 

এমএম/এইচএস


« PreviousNext »



সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
Editor : Iqbal Sobhan Chowdhury
Published by the Editor on behalf of the Observer Ltd. from Globe Printers, 24/A, New Eskaton Road, Ramna, Dhaka.
Editorial, News and Commercial Offices : Aziz Bhaban (2nd floor), 93, Motijheel C/A, Dhaka-1000. Phone :9586651-58. Fax: 9586659-60, Advertisemnet: 9513663
E-mail: [email protected], [email protected], [email protected], [email protected],   [ABOUT US]     [CONTACT US]   [AD RATE]   Developed & Maintenance by i2soft