For English Version
বৃহস্পতিবার, ০৪ জুন, ২০২০
হোম অনলাইন স্পেশাল

হাজারো মানুষের স্বপ্ন একটি রাস্তা

Published : Wednesday, 18 March, 2020 at 2:20 PM Count : 539
আমিনুল ইসলাম

গ্রামের নাম দাসপাড়া। সাভারের আশুলিয়ার শিমুলিয়া ইউনিয়নের অবহেলিত একটি গ্রাম। এ গ্রামের মানুষ এখনো স্বপ্ন দেখে মৃত্যুর আগে হয়তো গ্রামে প্রবেশের একটা ভাল রাস্তা দেখে যেতে পারবেন। কিন্তু সেই স্বপ্ন কি স্বপ্নই থাকবে? না কি বাস্তবে পরিণত হবে এমন শংকা নিয়েই দিনাতিপাত করছেন এখানকার বাসিন্দারা।

বর্ষা মৌসুম ছাড়া বছরের অন্যান্য সময় পায়ে হাটার জন্য একটি সরু পথ থাকে। তবে বর্ষায় ওই গ্রামে যাতায়াতের একমাত্র পন্থা নৌকা। বছরের পর বছর ধরে এ গ্রামের মানুষগুলো এমন ভোগান্তি নিয়েই অবহেলিত জনপদে বসবাস করছেন।

এর আগে গ্রামবাসী শিমুলিয়ার চাঙ্গিরদিয়া ডিপ মেশিন পাড় থেকে দাসপাড়া বায়তুল আকসা জামে মসজিদ পর্যন্ত ১৫ ফুটের একটি রাস্তা নির্মাণের উদ্যোগ নিলেও স্থানীয় বাধার মুখে তা আর করতে পারেনি। রাস্তার উভয় পাশের অধিকাংশ জমির মালিক রাস্তার জন্য জমি ছেড়ে দিলেও বাধা হয়ে দাঁড়ান স্থানীয় কাছৈর এলাকার সহিদুল ইসলাম ওরফে সহি ও চাঙ্গিরদিয়া এলাকার আক্কাস আলী। কারণ রাস্তার উভয় পাশে তাদের জমির পরিমাণ বেশি।

যে কারণে রাস্তাটি স্বপ্নই থেকে যায় গ্রামবাসীর। দীর্ঘদিন অতিবাহিত হলেও ওই রাস্তার কাজ আর করতে পারেনি তারা।

স্বাধীনতার এতো বছর পরও সাভার উপজেলার শিমুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের আওতাধীন দাসপাড়ার এ গ্রামে উন্নয়নের কোন ছোঁয়া লাগেনি। তবে শিমুলিয়ার অধিকাংশ এলাকাতেই লেগেছে উন্নয়নের ছোঁয়া। শুধু এ গ্রামটি রয়ে গেছে অবহেলিত।

গ্রামটিতে প্রায় সহস্রাধিক লোকের বসবাস। রয়েছে শতাধিক স্কুল, কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া শিক্ষার্থী। বর্ষা মৌসুমে গ্রাম থেকে বের হতে হলে একমাত্র চলাচলের বাহন থাকে নৌকা। সে সময় শিক্ষার্থীরা ঠিকমত পাঠগ্রহণ করতে প্রতিষ্ঠানে যেতে পারে না। কোন ব্যক্তি মৃত্যুবরণ করলে মৃতদেহ কবরস্থানে নেওয়ারও উপায় থাকেনা ওই গ্রামের লোকজনের।

এলাকাবাসী জানান, দাসপাড়া গ্রামে দুটি পাড়া রয়েছে। একটি পশ্চিম অন্যটি পূর্ব। উভয় পাড়ায় প্রবেশে কোন রাস্তা নেই। তবে ইউনিয়ন পরিষদ থেকে বরাদ্দ দিয়ে কাছৈর ব্রীজের পশ্চিম পাশের অংশ থেকে দাসপাড়া এলাকায় প্রবেশের জন্য একটি রাস্তা নির্মাণের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছিল। কিন্তু কয়েকজন লোকের বাধা ও মামলা করার কারণে রাস্তাটি নির্মাণ করা সম্ভব হয়নি।

এ ব্যাপারে সহিদুল ইসলাম ওরফে সহিরের ছেলে হারুন মুঠোফোনে জানান, রাস্তা নির্মাণ করতে আমরা কোন বাঁধা দেইনি। দশের স্বার্থে জনগণের স্বার্থে সকলেই যদি রাস্তা নির্মাণ করতে জমি দেন তাহলে আমরাও দেব।





এ ব্যাপারে আক্কাস আলী মুঠোফোনে জানান, ওইখানেতো কোন রাস্তা নাই। প্রথমে বললেও পরবর্তীতে তিনিই নাকি রাস্তাটি নির্মাণ করার জন্য প্রথমে উদ্যোগ নিয়েছেন। তবে সহিদুল ইসলাম সহি জমি দিতে চায়নি এবং রাস্তা শুরুর স্থান থেকে মফিজ নামের একজন জমি দিতে চায়নি। তাই রাস্তাটি আর নির্মাণ করা হয়নি। 

শিমুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের ২ নং ওয়ার্ড সদস্য মো. খলিলুর রহমান বলেন, 'একটি রাস্তার অভাবে দাসপাড়া গ্রামের মানুষগুলো খুবই অসুবিধার মধ্যে রয়েছে। তবে গেল বছর ওই গ্রামের একটি রাস্তার জন্য কাজ পেয়েছিলাম। কিন্তু কিছু লোকের বাধার মুখে কাজটি করা যায়নি। কিছু দিন পরেই প্রজেক্ট আছে। গ্রামবাসী সকলে মিলে একটা আবেদন করলে পরবর্তীতে কাজ দেওয়া হবে।'

শিমুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এ বি এম আজাহারুল ইসলাম সুরুজ বলেন, 'আমার শিমুলিয়ার এই একটি মাত্র গ্রামই রাস্তা ছাড়া। তবে এর আগে রাস্তা করার জন্য বরাদ্ধ দিয়েছিলাম। কিন্তু ২-৩ জন লোকের বাধার কারণে রাস্তাটি করা সম্ভব হয়নি।

-এমএ


« PreviousNext »



সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
Editor : Iqbal Sobhan Chowdhury
Published by the Editor on behalf of the Observer Ltd. from Globe Printers, 24/A, New Eskaton Road, Ramna, Dhaka.
Editorial, News and Commercial Offices : Aziz Bhaban (2nd floor), 93, Motijheel C/A, Dhaka-1000. Phone :9586651-58. Fax: 9586659-60, Advertisemnet: 9513663
E-mail: [email protected], [email protected], [email protected], [email protected],   [ABOUT US]     [CONTACT US]   [AD RATE]   Developed & Maintenance by i2soft