For English Version
সোমবার, ২৬ আগস্ট, ২০১৯
হোম সারাদেশ

শ্রীপুরে নারীর হাত-পা-মস্তকবিহীন লাশ উদ্ধার

Published : Tuesday, 13 August, 2019 at 11:23 PM Count : 209
অবজাভার প্রতিনিধি

গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলায় ঘরের ড্রেসিং টেবিলের ভেতর থেকে পলিথিনে মোড়ানো এক নারীর মৃত দেহের পাঁচ খন্ড উদ্ধার করেছে পুলিশ।

সোমবার বিকেলে শ্রীপুর উপজেলার আসপাডা মোড় এলাকা থেকে ওই লাশটি উদ্ধার করেছে পুলিশ। তবে উদ্ধার হওয়া দেহের অংশগুলো নিয়ে এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়। স্থানীয়রা কেউ কেউ পচে গলে যাওয়া দেহের অংশকে কোরবানি গোশত বলে প্রচার দিতে থাকে।

এদিকে উদ্ধার হওয়া গোশতের টুকরো গুলো মানুষের কিনা তা নিশ্চিত হতে গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানোর পর মানব দেহের অংশ নিশ্চিত হওয়া যায়।
মঙ্গলবার দুপুরে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে ওই লাশের ময়নাতদন্ত সম্পন্ন হয়েছে।

শ্রীপুর থানার এসআই রাজীব কুমার সাহা জানান, লাশটি ময়মনসিংহের ত্রিশাল থানার নিজাম উদ্দিনের মেয়ে সুমি আক্তারের (২৩) বলে প্রাথমিকভাবে প্রমান পাওয়া গেছে। সুমি শ্রীপুর উপজেলার গিলারচালা এলাকার সাবলাইম গ্রিনটেক নামের পোশাক কারখানার সুইং অপারেটর ছিলেন। তিনি স্বামী মো. মামুনের (৩৫) সঙ্গে আসপাডা মোড় এলাকায় নাইম উদ্দিনের বাড়ি ভাড়া থাকতেন। প্রায় দেড় বছর আগে তাদের বিয়ে হয়। এটা ছিল উভয়ের দ্বিতীয় বিয়ে। স্বামী ওই এলাকায় ইলেক্ট্রিশিয়ানের কাজ করেন। বিয়ের কয়েক মাস পর থেকেই তাদের মধ্যে দাম্পত্য কলহ চলছিল।

‘নিহতের ছোট বোন বৃষ্টি একই কারখানায় চাকুরি করেন। বৃষ্টি একই এলাকায় অনত্র ভাড়া থাকেন। বৃহস্পতিবার বেতন দিয়ে কারখানায় ঈদের ছুটি হয়ে যায়। শুক্রবার তাদের একই সঙ্গে বাড়ি যাওয়ার কথা। সুমি কারখানা থেকে ঈদ বোনাস ও বেতনসহ ৩০হাজার টাকা পেয়েছেন। ঈদের ছুটিতে গ্রামের বাড়িতে গিয়ে টিউবওয়েল স্থাপনের জন্য ওই টাকা নিয়ে যাওয়ার কথা ছিল। শুক্রবার সকালে বাড়ি যাওয়ার সময় সুমিকে একাধিকবার মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করেও না পেয়ে বৃষ্টি ও তার স্বামী নবী হোসেন গ্রামের বাড়ি ময়মনসিংহের উদ্দেশ্যে রওনা হন। তারা বাড়িতে পৌঁছে একাধিকবার বড় বোন ও ভগ্নিপতির মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করেও তাদের ফোন বন্ধ পান। শনিবার বৃষ্টি ও তার স্বামী আসপাডা মোড় এলাকায় বোনের ভাড়া বাসায় যান। সেখানে কাউকে না পেয়ে ঘরের দরজার তালা ভেঙ্গে ভেতরে ঢুকেন। সেখানে কাউকে না পেয়ে ফিরে যান তারা। পরে শনিবার সকালে তারা আসপাড়া মোড় এলাকায় মামুনের সন্ধান পান এবং তাকে ধরে ভাড়া বাসার দিকে রওনা দেন। এক পর্যায়ে মামুন তাদের ভাড়া বাসায় যেতে বলে কৌশলে পালিয়ে যায়। এখন পর্যন্ত মামুন পলাতক রয়েছে।’

‘এরপর তারা বৃষ্টি ও তার স্বামী গ্রামের বাড়ি ফিরে যান। বাড়ি গিয়েও বোনকে না পেয়ে আবার মোবাইল ফোনে যোগাগের চেষ্টা করেন তারা। কিন্তু বোন-ভগ্নিপতির কোন সন্ধান পাননি বৃষ্টি। পরে সোমবার বিকেলে আবার তারা আসপাডা মোড় এলাকার ওই ভাড়া বাসায় যান এবং ঘরের ভেতরে ঢুকেন। এক পর্যায়ে তারা ঘরে থাকা ড্রেসিং টেবিলের নীচ থেকে মেঝেতে রক্তাক্ত পানি গড়াতে দেখতে পান এবং ঘরের ভেতর দূর্গন্ধ পান। পরে তারা সোমবার রাত ৮টার দিকে ড্রেসিং টেবিলটির ড্রয়ার খুলে চারটি পলিথিনে মোড়ানো মানবদেহের পাঁচটি টুকরা দেখতে পান। তবে সেখানে তার মাথা, হাত ও পা ছিল না। বিষয়টি শ্রীপুর থানা পুলিশে জানানো হয়।’

এসআই রাজীব জানান, খবর পেয়ে পেয়ে রাত সাড়ে ৮টার দিকে শ্রীপুর থানা পুলিশ সুরুতহাল প্রতিবেদন তৈরি করে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠায়।

শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসক প্রণয় ভূষন দাস জানান, পলিথিনে থাকা মাংস খন্ডে মানুষের চামড়া ও নারীর আলামত ছিল। তবে সেখানে মাথা, হাত ও পা ছিল না। মঙ্গলবার লাশের ময়নাতদন্ত সম্পন্ন হয়েছে।

এফএ/এসআর


« PreviousNext »



সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
Editor : Iqbal Sobhan Chowdhury
Published by the Editor on behalf of the Observer Ltd. from Globe Printers, 24/A, New Eskaton Road, Ramna, Dhaka.
Editorial, News and Commercial Offices : Aziz Bhaban (2nd floor), 93, Motijheel C/A, Dhaka-1000. Phone :9586651-58. Fax: 9586659-60, Advertisemnet: 9513663
E-mail: [email protected], [email protected], [email protected], [email protected],   [ABOUT US]     [CONTACT US]   [AD RATE]   Developed & Maintenance by i2soft